শিরোনাম :
কোটা আন্দোলন : কক্সবাজারে আওয়ামীলীগ, জাসদ, জাতীয় পার্টির কার্যালয়, মসজিদ, ব্যবসা প্রতিষ্ঠান ও গাড়ি ভাংচুর; ছাত্রলীগ ৪ নেতাকে মারধর কক্সবাজারে মুক্তিযোদ্ধা সন্তানদের বিক্ষোভ মিছিল চট্টগ্রামে কোটা আন্দোলনে সংর্ঘষে নিহত ছাত্র আকরামের বাড়ী কক্সবাজারের পেকুয়ায় পেকুয়ায় দূর্যোগ প্রস্তুতি ও সাড়াদান বিষয়ক কর্মশালা ক্রিস্টাল মেথ আইস উদ্ধার পর্যটন শহরেও উত্তাপ ছড়ালো কোটা আন্দোলনকারীরা উল্টো রথযাত্রা মহোৎসব ১৫ জুলাই টেকনাফে জেন্ডার ও বিরোধ সংবেদনশীল সাংবাদিকতা প্রশিক্ষণ মিয়ানমারের বিকট শব্দে আতংকে টেকনাফবাসী টেকনাফে ক্যান্সার রোগীর চিকিৎসার জন্য আর্থিক সাহায্যের আবেদন

কক্সবাজারে ডেঙ্গুর প্রকোপ নিয়ে প্যানেল মেয়র পাখির সচেতনতামূলক প্রচারণা

নিউজ রুম / ৪ বার পড়ছে
আপলোড : বুধবার, ১৭ জুলাই ২০২৪, ০৯:৫৫ অপরাহ্ন

বিডি প্রতিবেদক :
কক্সবাজারে ডেঙ্গু রোগের প্রকোপ দিন দিন বেড়েই চলছে। ঢাকার পর সবচেয়ে বেশি ডেঙ্গু রোগী কক্সবাজারে। স্থানীয়দের পাশাপাশি বিশাল রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীর কারণে প্রতিদিনই বাড়ছে আক্রান্তের হার।

সুস্থতার হার ৯৯.৭৮ ভাগ। গর্ভবতী মা ও শিশুরাই সবচেয়ে বেশি আক্রান্ত হচ্ছে ডেঙ্গু রোগে। তাই এদের বেশি যত্ন নেওয়ার পরামর্শ চিকিৎসকদের।

দিনেও রাতে মশারি ব্যবহারের পাশাপাশি বাড়ির আঙিনাসহ আশপাশের এলাকা পরিষ্কার রাখার পরামর্শ দিয়েছেন চিকিৎসকরা।
রোহিঙ্গা ক্যাম্পে ও ছড়িয়ে পড়েছে ডেঙ্গু।
এসব কারণে ডেঙ্গুর ব্যাপারে সাধারণ মানুষকে সচেতন করতে কক্সবাজার পৌরসভার প্যানেল মেয়র শাহেনা আক্তার পাখি বিশেষ প্রচারণা শুরু করেছে। কক্সবাজার জেলা প্রশাসন ও পৌরসভার সহযোগিতায় তার নির্বাচনী এলাকার তিন নাম্বার ওয়ার্ডের নুরপাড়া, রাখাইনপাড়া ও বড়বাজার এলাকা দিয়ে ডেঙ্গু প্রতিরোধে পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতা অভিমান শুরু করেছেন। কক্সবাজার পৌরসভার প্যানেল মেয়র শাহেনা আক্তার পাখি এসময় জনগনের মাঝে সচেতনতামূলক লিফলেট ও বিতরণ করেন। এসব এলাকায় পৌরসভার পক্ষ থেকে মশক নিধন ওষুধ ছিটানো হয়। জনগণকে বাসা বাড়ির আঙ্গিনা ও বাড়ির ছাদের উপর পরিষ্কার রাখার পরামর্শ দেন তিনি।
কক্সবাজার জেলার সিভিল সার্জন অফিসের তথ্য মতে চলতি বছরের জানুয়ারী থেকে আজ পর্যন্ত ২৭ রোহিঙ্গা সহ ডেঙ্গু রোগে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছে ৩৩ জন।
কক্সবাজার পৌরসভার প্যানেল মেয়র শাহেনা আক্তার পাখি বলেন, পর্যায়ক্রমে নির্বাচনী এলাকার অন্য দুটি ওয়ার্ডের সমস্ত এলাকায় প্রচারণা ও পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতা অভিযান চালানো হবে। তিনি বলেন, দিনেও রাতে মশারি ব্যবহারের পাশাপাশি ডেঙ্গুর ব্যাপারে সবাইকে সচেতন হতে হবে। বিশেষ করে শিশু ও গর্ভবতীদের দিকে বিশেষ দৃষ্টি রাখতে হবে পরিবারের অন্য সদস্যদের।


আরো বিভিন্ন বিভাগের খবর